প্রচ্ছদ / মালয়েশিয়া / মালয়েশিয়ার জাতীয় নির্বাচন এইমাত্র পাওয়া গেল ৬৬ কেন্দ্রের ফলাফল

মালয়েশিয়ার জাতীয় নির্বাচন এইমাত্র পাওয়া গেল ৬৬ কেন্দ্রের ফলাফল

অাপনাদের ঘু‌রি‌য়ে নি‌য়ে অা‌সি টুইন টাওয়ারের দেশ মাল‌য়ে‌শিয়া থে‌কে। আজ মাল‌য়ে‌শিয়ার নির্বাচন। যে দেশে নির্বাচন মা‌নেই একতরফা খেলা যে দে‌শে নির্বাচন মা‌নেই টানা ৬২ বছর ক্ষমতায় থাকা র‌াজনৈ‌তিক দল ইউনাইটেড মালয়স ন্যাশনাল অর্গানাইজেশন বা ইউএনএমওর জয় সেই দে‌শের নির্বাচনটা এবার বেশ উত্তেজনা ছড়া‌চ্ছে। তাও অাবার সেই মাহা‌থি‌রের কার‌ণেই।

যে মাহা‌থির ২২ বছর ক্ষমতায় থে‌কে অাধু‌নিক মাল‌য়ে‌শিয়া গ‌ড়ে‌ছেন তি‌নি অাজ বল‌ছেন তার কিছু ভুল ছিল। ৯২ বছর বয়সী মাহাথির তাই এবা‌র নির্বাচনের মা‌ঠে তারই দ‌লের বিরু‌দ্ধে। অার একসময় যা‌কে তি‌নি শত্রু বা‌নি‌য়ে‌ছি‌লেন সেই অা‌নোয়ার ইব্রা‌হি‌মের প‌ক্ষে তি‌নি। অার যাকে ক্ষমতায় ব‌সিয়ে‌ছি‌লেন সেই না‌জি‌বকে হটাতে মা‌ঠে নে‌মে‌ছেন তি‌নি।

মালয়েশিয়ার এবা‌রের নির্বাচনী প্রচারণায় একটি ভিডিও নজর কে‌ড়ে‌ছে সবার। ওই ভিডিওতে আছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ। ‌ভি‌ডিও‌তে দেখা যায় মাহাথির একটি ছোট মালয়ী বালিকাকে বলছেন, আমি বুড়ো হয়ে গেছি। আমার আর বেশিদিন নেই। দেশকে পুনর্গঠনের জন্য আমাকে কিছু কাজ করতে হবে। কারণ হয়তো আমি নিজেই অতীতে কিছু ভুল করেছি, সেজন্যে।

১৯৮১ সালে ক্ষমতায় এসে ২০০৩ সাল পর্যন্ত একটানা ক্ষমতায় ছিলেন মাহা‌থির। টানা ২২ বছর ক্ষমতায় থাকা মাহাথির মোহাম্মদের ক্যারিশমা এবং বুদ্ধিমত্তাকে চ্যালেঞ্জ করার মতো একমাত্র বিকল্প নেতা হিসেবে ভাবা হতো আনোয়ার ইব্রাহীমকে।

মাহাথির মোহাম্মদ যখন প্রধানমন্ত্রী, আনোয়ার ইব্রাহীম তখন উপ-প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু ১৯৯৭ সালে যখন এশিয়ায় অর্থনৈতিক সংকট দেখা দিল, তাদের দু জনের সম্পর্কের চরম অবনতি ঘটে। আনোয়ার ইব্রাহীমকে বরখাস্ত ক‌রেন তি‌নি।

এরপর শুরু হ‌লো শত্রুতার ইতিহাস। আনোয়ার ইব্রাহীম তার নিজের রাজনৈতিক দল গঠন করলেন। কিন্তু মাহাথিরের বিরুদ্ধে দাঁড়ানোর ফল তাকে ভোগ করতে হলো। তিনি মিথ্যা অ‌ভি‌যো‌গে গ্রেফতার হলেন, যে অভিযোগ তিনি সব সময় অস্বীকার করেছেন। ‌পিপলস জা‌স্টিস পা‌র্টি গঠন ক‌রে ২০০৮ সাল থে‌কে তি‌নি মাল‌য়ে‌শিয়ার বি‌রোধী দলীয় নেতা।

ও‌দিকে ‌নি‌জে যাকে ক্ষমতায় ব‌সি‌য়ে‌ছি‌লেন সেই না‌জিব রাজ্জা‌কের বিরু‌দ্ধে ব্যাপক দুর্নী‌তির অ‌ভি‌যোগ ও‌ঠে। ২০১৫ সা‌লে ১ এমডিবি’ তহবিল থেকে নাজিব রাজাক ৬৮ কোটি ১০ লাখ ডলার নিজের ব্যাংক একাউন্টে স্থানান্তর করেছেন বলে অভিযোগ আছে।

না‌জি‌বের স্ত্রী রোজমার বিরু‌দ্ধেও দুর্নী‌তি অার বিলাসবহুল জীবনযাপ‌সের অ‌ভি‌যোগ। বলা হয়, কো‌টি টাকার মুক্তার মালা অার ঘুষ দি‌য়ে তা‌কে কেনা যায়। তার স্ত্রীর বিলাসবহুল জীবন-যাপন সমালো‌চিত।

না‌জি‌বের দুর্নী‌তির অা‌রেকজন সঙ্গী বর্তমান উপ-প্রধানন্ত্রী জা‌হেদ হা‌মি‌দি। মাল‌য়ে‌শিয়ায় বাংলা‌দেশ থে‌কে কর্মী পাঠা‌নোর সি‌ন্ডি‌কেট অার দুর্নী‌তি নি‌য়ে অা‌মি নি‌জে এই সি‌ন্ডি‌কেটের বিরু‌দ্ধে নিউজ ক‌রে‌ছি। অামার সেই নিউজ মাল‌য়ে‌শিয়‌া কি‌নিতে লিড নিউজ হ‌য়ে‌ছিল।

না‌জিব অার তার লোকজ‌নের বিরু‌দ্ধে গত ক‌য়েক বছ‌রে এতোই অ‌ভি‌যোগ উঠে‌ছে যে, একপর্যা‌য়ে মাহা‌থিরও রাজপ‌থে না‌মেন। মাহা‌থির ব‌লেন‘আমি সবার কাছে ক্ষমাপ্রার্থী, যে না‌জিব‌কে আমিই এই পর্যায়ে তুলে এনেছি, এটি ছিল আমার জীবনের সবচেয়ে বড় ভুল। আমি সেই ভুলের প্রায়শ্চিত্ত করতে চাই।’

ওদিকে অা‌নোয়ার ইব্রা‌হিম‌কে গ্রেপ্তারের দেড়যুগ পর ২০১৬ সা‌লে নিজের দল ইউএনএম্ও ছেড়ে অা‌নোয়ার ইব্রা‌হি‌মের জোটে যোগ দিয়ে মাহাথির মোহাম্মদ বলেন, আমাদের একসঙ্গে কাজ করাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। আনোয়ারের পরিবার আমার সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করছে যাতে আমরা নাজিব রাজ্জাককে ক্ষমতা থেকে সরাতে পারি।

‌নির্বাচ‌নে সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির বিরোধী দল থেকে প্রধানমন্ত্রী পদে প্রার্থী হয়েছেন। নির্বাচনে রেকর্ড সংখ্যক ২৩৩৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তাই এ নির্বাচনকে এ যাবতকালের সবচেয়ে বড় লড়াই হিসেবে আখ্যায়িত করা হচ্ছে।

চলুন একটু ভো‌টের দি‌কে তাকাই। চাই‌নিজ ও ভারতীয় বং‌শোদ্ভুত লোকজন থাক‌লেও মালয়েশিয়ায় সংখ্যাগরিষ্ঠ ভোটার মালয়ীরা। শহ‌রের লোকজন কিছুটা স‌চেতন হ‌লেও গ্রা‌মের লোকজন ম‌নে করেন ইউএনএমও সব‌কিছু। অন্য‌দি‌কে শহরাঞ্চলের নিম্ন আয়ের মানুষদের ভাবনা আধুনিক মালেশিয়ার রূপকার হিসেবে খ্যাত সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদকে ঘিরে।

এখন প্রশ্ন হ‌লো ৯২ বছর বয়সে মাহাথির মোহাম্মদ কি পারবেন তার সাবেক শিষ্য নাজিব রাজ্জাককে ক্ষমতাচ্যূত করতে? চোখ রাখতে পারেন মাল‌য়ে‌শিয়ার ইতিহা‌সের সব‌চে‌য়ে উত্তেজনাকর আজকের নির্বাচ‌নে।
বিঃ দ্রঃ এখন পর্যন্ত নির্বাচনী ফলাফলে এগিয়ে আছেন মাহাথির।পুরো ফলাফল পাওয়া যাবে রাত ৯ টায়।

# পাকাতান হারাপান(মাহাথির)=৩৮

#বারিসান ন্যাশনাল(নাজিব)=২৮

প্রবাসীদের সকল ভিডিও খবর ইউটিউবে দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি: