শিরোনাম
প্রচ্ছদ / মালয়েশিয়া / মালয়েশিয়া রিহায়ারিং প্রোগ্রাম চলবে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

মালয়েশিয়া রিহায়ারিং প্রোগ্রাম চলবে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

আর মাত্র ১৪ দিন বাকি যারা এখনো নিবন্ধন করেননি এখনো করতে পারবেন।

অবৈধ উপায়ে মালয়েশিয়ায় পাড়ি জমানো প্রবাসী বাংলাদেশি শ্রমিকদের বৈধতা দিতে রি-হায়ারিং বা পুনঃনিয়োগ প্রোগ্রামের মেয়াদ বাড়িয়েছে দেশটির সরকার। ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে ৩০ জুনের মধ্যে অবৈধ শ্রমিকদের নাম নিবন্ধনের সুযোগ দেয়া হলেও এতে অংশ নেন হাতে গোনা কয়েকজন।

এ অবস্থায় নাম নিবন্ধনের সময়সীমা ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। যারা এ সুযোগ না নিয়ে অবৈধভাবে অবস্থান করবেন এবং যারা অবৈধ শ্রমিকদের কাজে নিয়োগ দেবেন তাদের ন্যূনতম ৫০ হাজার রিঙ্গিত জরিমানা ও এক বছরের কারাদণ্ড দেয়ার বিধান রাখা হয়েছে।যারা এই সুযোগ না নিয়ে অবৈধভাবে অবস্থান করবেন এবং যারা অবৈধ শ্রমিকদের কাজে নিয়োগ দেবেন তাদের নূন্যতম ৫০ হাজার রিঙ্গিত জরিমানা ও এক বছরের কারাদণ্ড দেয়ার বিধান রাখা হয়েছে।

মালয়েশিয়ায় অবস্থানরত বাংলাদেশি শ্রমিকরা তাদের অক্লান্ত পরিশ্রমে দেশের রেমিটেন্সের চাকা সচল রাখলেও আজ তারাই দালালের খপ্পরে পড়ে ভিসা জটিলতায় পার করছে দুর্বিষহ জীবন। পুলিশের হয়রানি, স্বল্প বেতনে হাড়ভাঙ্গা খাটুনি সেই সঙ্গে রিঙ্গিতের ধস, সব মিলিয়ে হতাশ খেটে খাওয়া মানুষগুলো।

আরো পড়ুন- যারা বৈধ হতে পারবেন এবং যারা বৈধ হতে পারবেন না

১৯৯৩ সাল থেকে মালয়েশিয়া সরকার বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নিতে শুরু করলে ভাগ্য পরিবর্তনের আশায় অনেকেই অবৈধভাবে প্রবেশ করে। ৪ লাখেরও বেশি অবৈধ বাংলাদেশি শ্রমিকদের বৈধতা দিতে ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত রি হায়ারিং প্রোগ্রাম চালু করা হলেও মাত্র হাতে গোনা কয়েকজন এতে নাম নিবন্ধন করে। এ অবস্থায় নিবন্ধনের মেয়াদ ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাড়ানো হয়। শ্রমিকরা তাদের কোম্পানির মালিকদের মাধ্যমে মাই ইজিতে এই পুনঃ নিবন্ধনের সুযোগ পাবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ দূতাবাসের শ্রম কাউন্সিলর মোঃ সায়েদুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ‘১ লক্ষ ৩৪ হাজার বাংলাদেশি রি হায়ারিং কর্মসূচীর অধীনে রেজিস্ট্রি ভুক্ত হয়েছেন। আমরা আশা করি এবার ২ লক্ষ ছাড়িয়ে যাবে।’ মালয়েশিয়া অবৈধ বাংলাদেশিদের অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, ‘তারা যেন দ্রুত এই সুযোগ গ্রহণ করে নেয়।’

এদিকে, মালয়েশিয়ার অভিবাসন বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, যারা পুনঃ নিবন্ধনে অংশ নেবেন না এবং যে কোম্পানির মালিক অবৈধ শ্রমিকদের দিয়ে কাজ করাবেন তাদের প্রচলিত আইনের আওতায় ৫০ হাজার রিঙ্গিত জরিমানাসহ এক বছরের কারাদণ্ড দেয়া হবে।এছাড়া কোনো মালিকপক্ষ যদি ৫ জনের বেশি অবৈধ শ্রমিক রাখেন তাহলে ৫ বছরের জেল কার্যকর করা হবে।

প্রবাসীদের সকল ভিডিও খবর ইউটিউবে দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি: